যে কারণে নারীবাদীরা মার্কেজকে ঘৃণা করে!

img

ল্যাটিন এমেরিকার সেরা লেখকদের মধ্যে গ্যাব্রিয়েল গর্সিয়া মার্কেজ অন্যতম একজন। তার ভাষাশৈলী অবিশ্বাস্য রকম মনকাড়া ও মুগ্ধকর। কিন্তু নারীবাদীরা মার্কেজকে উগ্র পুরুষতান্ত্রিক বলতে চান।

“কিন্তু যখন কোন মেয়েলোক কোন পুরুষের বিছানায় যাওয়ার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিতে যায়, হেন বিষয় নাই যে সে চিন্তা-যাচাই করেনা, এমন কোন আশংকা নাই যে সে করেনা, এটা করা ঠিক হচ্ছে-কি-হচ্ছেনা তা বিবেচনা করতে করতে সে এতসব নৈতিক চিন্তা করে যেঃ দেব-দেবীরাও বোধয় এত দুঃশ্চিন্তা করেন না।’’ -গ্যাব্রিয়েল গর্সিয়া মার্কেজ, লাভ ইন দ্য টাইম অফ কলেরা।

(“But when a woman decides to sleep with a man, there is no wall she will not scale, no fortress she will not destroy, no moral consideration she will not ignore at its very root: there is no God worth worrying about.”  ― Gabriel Garcí¬a Márquez, Love in the Time of Cholera )

মার্কেজ তার সম্মোহনি ভাষা দিয়ে লেখার পাতায় পাতায় মেয়েদের হেয় করেছেন বলে ফেমিনিস্টরা দাবি করেন। তারা উদাহরণ হিসেবে বলেনঃ 'Love in the Time of Cholera' তে একজন মহিলা চরিত্র ধর্ষিত হয়। ধর্ষনের সময় ধর্ষক পিছন থেকে শারীরিক নির্যাতন করেন বলে ধর্ষিতা মহিলা চরিত্রটি ধর্ষক পুরুষটির চেহারা দেখতে পায়না। পরবর্তীতে ওই মহিলা তার না দেখা ধর্ষকের প্রেমে পড়েন। এমনকি জীবনের বাকিটা সময় ওই ধর্ষক পুরুষকে সে পাগলের মতন খুঁজতে থাকে। এরপরের অংশটি আরো ভয়াবহ। ওই মেয়ে চরিত্রটি ধর্ষনের সময় পাওয়া আনন্দ পুনর্যাপন করার জন্য অসংখ্য পুরুষের সাথে সেক্স করা শুরু করে! এই ধরনের কাহীনি বিনির্মানকে ফেমিনিস্টরা ভয়ানক বিকৃত মানসিকতা বলতে চান। তারা গ্যাব্রিয়েল গর্সিয়া মার্কেজকে একজন পুরুষতান্ত্রিক মনোভাবাপন্ন আখ্যায়িত করেন।


eProkash User

ইন্টারভিউ